ফিচার বাংলাদেশ সর্বশেষ জীবন-শিল্প মতামত

রেলের ভাড়া বাড়ছে

রেলের ভাড়া বাড়ছে

আবারো বাড়ছে রেলের ভাড়া। এবার ২৫ শতাংশ ভাড়া বাড়ানোর প্রস্তাব করেছে রেলওয়ে কর্তৃপক্ষ। আগামী জুন মাসের মধ্যে বর্ধিত ভাড়া কার্যকর করার প্রস্তুতি নিয়েছে রেল কর্তৃপক্ষ।

এ নিয়ে তিন বছরের মধ্যে দ্বিতীয়বার বাড়বে রেলের ভাড়া। সেবা নিয়ে প্রতিনিয়তিই বিভিন্ন ধরনের অভিযোগ থাকলেও রেলের ভাড়া বাড়ানোর উদ্যোগ নিয়ে প্রশ্ন উঠেছে। রেলের সেবা না বাড়িয়ে বছরে বছরে ভাড়া বাড়ানোর সমলোচনা করেছে গণপরিবহন বিশেষজ্ঞ ও যাত্রী অধিকার নিয়ে কাজ করা বিভিন্ন সংগঠন।

রেল মন্ত্রণালয় সূত্র জানায়, গড়ে ২৫ শতাংশ ভাড়া বৃদ্ধির সুপারিশ করা হয়েছে। ফলে রেলের কিলোমিটারপ্রতি ভিত্তিভাড়া ৩৯ পয়সা থেকে বেড়ে হবে ৪৯ পয়সা। যদিও রুটভেদে শোভন চেয়ারে ভাড়া বাড়ছে ২২ থেকে ৪৭ শতাংশ, আর এসি চেয়ারে রুটভেদে ভাড়া বাড়ছে ৩৯ থেকে ৬৪ শতাংশ পর্যন্ত।

নতুন প্রস্তাব অনুযায়ী, ঢাকা-চট্টগ্রাম রুটের শোভন চেয়ারের বর্তমান ভাড়া ৩৪৫ টাকা থেকে বাড়িয়ে ৪৬৫ টাকা করা হবে। এসি চেয়ার কোচের ভাড়া ৬৫৬ টাকা থেকে বাড়িয়ে করা হবে এক হাজার ৭০ টাকা। ঢাকা-খুলনা রুটে শোভন চেয়ারের ভাড়া ৫০৫ টাকা থেকে বাড়িয়ে ৬৩০ টাকা প্রস্তাব করা হয়েছে। আর এসি চেয়ারের ভাড়া ৯৬৬ টাকা থেকে বাড়িয়ে এক হাজার ৪৪৩ টাকা করা হবে।

এদিকে, ঢাকা-সিলেট রুটের ক্ষেত্রে শোভন চেয়ারের ভাড়া ৩২০ টাকা থেকে ৪৩৫ টাকা এবং এসি চেয়ারে ৬১০ টাকা থেকে বেড়ে এক হাজার এক টাকা করা হবে। মালবাহী ট্রেনের ভাড়াও প্রস্তাব অনুযায়ী ২৫ ভাগেরও বেশি করা হবে।

এ বিষয়ে রেল মন্ত্রণালয়ের সচিব মোফাজ্জল হোসেন বলেন, ‘ভাড়া বাড়ানোর প্রস্তাব প্রস্তুত করা হয়েছে। এখন প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে পাঠানো হবে। তার আগেই বিভিন্ন ধাপ সম্পন্ন করতে হবে।’ আগামী জুনের মধ্যে এ ভাড়া কার্যকর করতে চাচ্ছেন বলে জানান রেল সচিব।

রেলের ভাড়া বৃদ্ধির সমালোচনা করে যাত্রী কল্যাণ সমিতির মহাসচিব মোজাম্মেল হক চৌধুরী বলেন, যাত্রী সেবার দিক বিবেচনা না করে শুধু ভাড়া বৃদ্ধির দিকে মনযোগ দিয়েছে রেলওয়ে। নতুন কিছু ট্রেন ছাড়া বেশিরভাগ ট্রেনের সেবার মান খুবই খারাপ। আর ট্রেনে সাধারণ মানুষ যাতায়াত করেন। এখানে বিলাসবহুল ভাড়া দিয়ে রেলকে সাধারণের বাইরে নেওয়া হচ্ছে।

Comments