ফিচার বাংলাদেশ সর্বশেষ আইন-আদালত শিক্ষা

শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ করে জুয়ার আসর

শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ করে জুয়ার আসর

দিনাজপুর জেলা শহরের বিরলের ধুকুরঝাড়ীতে দু’টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ করে চলছে জুয়ার আসর, র‌্যাফেল ড্র, হাউজি ও নগ্ন নৃত্য পরিবেশন। ফলে সর্বশান্ত হচ্ছে এলাকার সাধারণ মানুষ।

জানা যায়, শহর থেকে মাত্র ৮ কিলোমিটার দূরে সেতাবগঞ্জের পথে মহাসড়কের পার্শ্বেই ধুকুরঝাড়ী দ্বিমুখী উচ্চ বিদ্যালয়। কোন কারণ ছাড়াই গত ৭ দিন ধরে প্রাথমিক ও মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে ছুটি ঘোষণা করে বিদ্যালয় মাঠে কিছু দোকান আর জুয়া, হাউজি ও র‌্যাফেল ড্র’র বিশাল প্যান্ডেল করে রাখা হয়েছে। সন্ধ্যার পর শুরু হয় হাউজি জুয়া, র‌্যাফেল ড্র, আর নগ্ন নৃত্য পরিবেশন ।

 

ধুকুরঝাড়ী উচ্চ বিদ্যালয়ের দশম শ্রেণির ছাত্র আবউ নাইম জানায়, আমাদের বিদ্যালয় বন্ধ রেখে পশু মেলার নামে চলছে র‌্যাফেল ড্র, হাউজি ও নগ্ন নৃত্য। এখানে বিদ্যালয়কে হাউজি কার্যালয় ও মাঠকে প্যান্ডেল এবং প্রধান শিক্ষকের কার্যালয়কে মুক্তা র‌্যাফেল ড্র’র অফিস বানিয়ে জমজমাট চলছে জুয়ার আসর। প্রতিদিন হাউজি খেলতে আসা সাধারণ মানুষেরা ভোর পর্যন্ত হাউজি খেলে সর্বশান্ত হয়ে ফিরে যাচ্ছে।

গ্রামের স্থানীয় বাসিন্দা মকবুল হক জানান, মেলায় পুরস্কারের নামে লক্করঝক্কর মার্কা নিম্নমানের জিনিসপত্র রং বার্নিশ করে চালিয়ে দিচ্ছে ভাগ্যবান ব্যক্তিদের। এসব জুয়ার নামে হাউজি ও র‌্যাফেল ড্র বসিয়ে বাড়ছে চুরি ও ছিনতাই। অন্যদিকে নগ্ন নৃত্যের পরিবেশনা যুবকদের বিপথে আনছে। তাই হাউজি ও র‌্যাফেল ড্র বন্ধে স্থানীয় এলাকাবাসী ও সচেতন মহল প্রশাসনের জরুরী হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন।

এ ব্যাপারে ধুকুরঝাড়ী দ্বিমুখী উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক বিমল চন্দ্র দাসকে স্কুল বন্ধে কোন নোটিশ পেয়েছেন কি না জানতে চাইলে তিনি জানান, তাকে কোন নোটিশ দেওয়া হয়নি।

শিক্ষাবোর্ড চেয়ারম্যান আবু বকর সিদ্দিক জানান, শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ করে কখনই এধরনের কার্যক্রম পরিচালনা করতে পারেনা। আমি ইতোমধ্যে জেলা প্রশাসকের সাথে কথা বলেছি স্কুল বন্ধ রেখে এ ধরনের হাউজি ও র‌্যাফেল ড্র বন্ধে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে বলেছি।

দিনাজপুর বিরল থানা অফিসার ইনচার্জ এ টি এম গোলাম রসুল জানান, ধুকুরঝাড়ীতে মেলার অনুমতি আছে তবে হাউজি ও র‌্যাফেল ড্রসহ কোন প্রকার জুয়ার অনুমতি নাই।

পুলিশ সুপার আবু সায়েম জানান, মেলায় হাউজি বা জুয়ার কোন অনুমোদন দেওয়া হয় না। এসব মেলার অনুমোদন জেলা প্রশাসক দিয়ে থাকে। তিনি নির্দেশ দিলেই আমি তাৎক্ষণিক হাউজি ও র‌্যাফেল ড্র জুয়া বন্ধের ব্যবস্থা নিবো।

ধুকুরঝাড়ী মেলার হাউজি ও র‌্যাফেল ড্র বিষয়ে জেলা প্রশাসক মোঃ মাহমুদুল আলম জানান, আমরা শুধু পশু মেলার অনুমোদন দিয়েছি কোন হাউজি বা র‌্যাফেল ড্র এর অনুমোদন দেওয়া হয়নি।

Comments